শিরোনাম
সুগন্ধার আনাচে কানাচে স্বজনদের খুঁজছেন ৩৬ পরিবার ভ্রমণের আনন্দে বিষাদ! স্বামী ও সন্তানকে জিম্মি করে গৃহবধূকে দলবদ্ধ ধর্ষণ ৬ শতাধিক রোহিঙ্গা সপ্তম দফায় আজ ভাসানচরে যাচ্ছে করোনা সংক্রমণ ঊর্ধ্বমুখী, বেড়েছে মৃত্যু বিজয়ের ৫০ বছর পূর্তিতে দেশবাসীকে শপথ করালেন প্রধানমন্ত্রী সিংড়ায় শিশুর গলাকাটা মরদেহ উদ্ধার
×

নাটোর প্রতিনিধি
প্রকাশ : ১৪/১/২০২২ ৮:৪৮:৫৩ PM

নাটোরে শিক্ষার্থী গণধর্ষণের শিকার, গ্রেপ্তার ৬

নাটোরের নলডাঙ্গার এক স্কুল শিক্ষার্থীকে গণধর্ষণের ঘটনায় পাঁচজনকে আটক করেছে পুলিশ। বাকী তিনজন আসামী পলাতক রয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১৩ জানুয়ারি)রাতে নাটোর সদর উপজেলার ছাতনী এলাকায় এই ঘটনা ঘটেছে।

আটককৃতরা হলেন,একই এলাকার শহিদুল ইসলাম(২২) শরিফুল ইসলাম(২২), কাজল হোসেন(২৫), আসাদুল ইসলাম(৩৮) এবং আমিনুল ইসলাম।,

নাটোর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মনসুর আহমদ জানান, বৃহস্পতিবার (১৩ জানুয়ারি) বিকাল সাড়ে তিনটার দিকে নলডাঙ্গা উপজেলার মাধনগর এলাকা থেকে এক স্কুল শিক্ষার্থী পরিবারের উপর অভিমান করে ছাতনী ভাটপাড়া খালার বাড়ির উদ্দেশ্যে বের হয়।

পরে সন্ধ্যা সাতটার দিকে ছাতনী দিয়ার এলাকায় পৌঁছলে মাঝদিঘা গ্রামের মকবুল হোসেনের ছেলে শহিদুল ইসলাম(২২) ব্যক্তির সাথে পরিচয় হয়।

শহিদুল ইসলাম মেয়েটিকে ভুলভাল বুঝিয়ে তার খালার বাড়ি পৌঁছে দেওয়ার কথা বলে কৌশলে

ওই এলাকার এক বিলে লেবু বাগানে নিয়ে গিয়ে আটজন মিলে ওই শিক্ষার্থীকে ধর্ষণ করে। পরে এক পর্যায়ে মেয়েটির চিৎকারে স্থানীয় লোকজন এলে ধর্ষণকারীরা পালিয়ে যায়।

পরে ওই রাতেই অভিযান চালিয়ে পাঁচজনকে আটক করে পুলিশ।

বর্তমানে ওই শিক্ষার্থীকে ডাক্তারী পরীক্ষা করার জন্য নাটোর আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

এ ঘটনায় ওই শিক্ষার্থীর বাবা বাদী হয়ে শুক্রবার দুপুরে নাটোর থানায় আট জনকে আসামী করে একটি মামলা দায়ের করেছেন।